বিনিয়োগকারীদের অব্যাহত বিক্রয় চাপে টানা চার কার্যদিবসে নিম্নমুখী রয়েছে স্টক এক্সচেঞ্জের মূল্যসূচক। সোমবার দিনশেষে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সার্বিক মূল্যসূচক কমেছে ১০.৭৪ পয়েন্ট।
বিক্রয় চাপে অব্যাহত পতনে পুঁজিবাজার 

বিনিয়োগকারীদের অব্যাহত বিক্রয় চাপে টানা চার কার্যদিবসে নিম্নমুখী রয়েছে স্টক এক্সচেঞ্জের মূল্যসূচক। সোমবার দিনশেষে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সার্বিক মূল্যসূচক কমেছে ১০.৭৪ পয়েন্ট।


এসময় চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সূচক ও লেনদেন উভয় বেড়েছে। দিনশেষে সিএসইর সাধারণ মূল্যসূচক কমেছে ১০.৪৬ পয়েন্ট। এসময় সিএসইতে ২১ কোটি ৯২ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে। ডিএসই ও সিএসইর বাজার পর্যালোচনায় এ তথ্য জানা গেছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, ডিএসইতে লেনদেন হওয়া কোম্পানি ও ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৩৯টির। দর কমেছে ১৪৮টি কোম্পানি ও ফান্ডের  এবং দর অপরিবর্তিত ছিল ৫৩টি প্রতিষ্ঠানের। এসময় ডিএসইতে ১৪ কোটি ৫৩ লাখ ৮৩ হাজার ৮০৯টি শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।

দিনশেষে ডিএসইতে টাকার অংকে লেনদেন হয়েছে ৪৯০ কোটি ২৯ লাখ টাকা। এর আগের কার্যদিবসে ডিএসইতে ৫৩১ কোটি ৬৭ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছিল।

এদিন ডিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক ডিএসইএক্স আগের কার্যদিবসের তুলনায় ১০.৭৪ পয়েন্ট কমে ৫৬৮৩.৫৩ পয়েন্টে স্থিতি পেয়েছে। এসময় শরীয়াহ্ ভিত্তিক কোম্পানিগুলোর মূল্যসূচক ডিএসইএস ও ডিএস-৩০ সূচক যথাক্রমে ১.৭৪ পয়েন্ট ও ৫.৭৩ পয়েন্ট কমেছে।

লেনদেন শেষে টার্নওভার তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে বেক্সিমকো। এসময় কোম্পানিটির ২৮ কোটি ৮০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। টার্নওভার তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল বিডি থাই, কোম্পানিটির ১৪ কোটি ৫৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ১৩ কোটি ৪৭ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনের মধ্য দিয়ে টার্নওভারের তৃতীয় অবস্থানে উঠে এসেছে স্কয়ার ফার্মা।

টার্নওভার তালিকায় থাকা অন্য কোম্পানিগুলো হলো- গ্রামীণফোন, ইউনাইটেড পাওয়ার, শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ, কুইন সাউথ টেক্সটাইল, নাভানা সিএনজি ও ইফাদ অটোস।

এদিকে, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) লেনদেন হওয়া ২৪৬টি কোম্পানি ও ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১০৫টির, দর কমেছে ১০৬টির এবং দর অপরিবর্তিত ছিল ৩৫টি প্রতিষ্ঠানের।

এসময় সিএসইতে ২১ কোটি ৯২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে।

দিনশেষে সিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক সিএসইএক্স আগের কার্যদিবসের তুলনায় ১০.৪৬ পয়েন্ট কমে ১০ হাজার ৬১৩ পয়েন্টে স্থিতি পেয়েছে। এসময় সিএসইতে টার্নওভার তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে বেক্সিমকো, কোম্পানিটির ১ কোটি ৮৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে।

Post A Comment: