ঢাকার বাড্ডায় হত্যাকাণ্ডের শিকার বাবা জামিল শেখ (৩৮) ও মেয়ে নুসরাতের (৯) লাশ দাফন করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে তাদের গ্রামের বাড়ি গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার বনগ্রাম পূর্বপাড়ায় দাফন করা হয়।
Badas-dead-children-were-buried-in-the-village 

ঢাকার বাড্ডায় হত্যাকাণ্ডের শিকার বাবা জামিল শেখ (৩৮) ও মেয়ে নুসরাতের (৯) লাশ দাফন করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে তাদের গ্রামের বাড়ি গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার বনগ্রাম পূর্বপাড়ায় দাফন করা হয়।


এর আগে সকাল ১০টায় বনগ্রাম পূর্বপাড়া মাদ্রাসা মাঠে প্রথমে জামিলের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরে একই স্থানে মেয়ে নুসরাতের জানাজা নামাজ সম্পন্ন হয়।

জানাজায় জামিল শেখের তিন ভাই- ফারুক শেখ, ইবুল শেখ ও শামীম শেখসহ বনগ্রাম ও আশাপাশ এলাকার সহস্রাধিক মানুষ অংশ নেন।

বাবা-মেয়ের এমন করুণ মৃত্যুর খবর বৃহস্পতিবার গ্রামে যাওয়ার পর থেকেই এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।

নিহতের স্বজনেরা জানায়, জামিল ও তার স্ত্রী আরজিনা বেগমের মধ্যে বিগত কয়েক বছর দ্বন্দ্ব লেগেই থাকতো। সর্বশেষ মাস দু’য়েক আগে জামিলের স্ত্রী আরজিনা ঝগড়া করে ছোট ছেলেকে নিয়ে বাবার বাসা সাভারে চলে যান।

সপ্তাহ খানেক আগে উভয়পক্ষের লোকজন মীমাংসা করে আরজিনাকে বাসায় নিয়ে আসেন।

বৃহস্পতিবার সকালে বাড্ডার হোসেন মার্কেটের ময়নারটেক এলাকার ৩০৬ নম্বর গোরস্থান রোডের তৃতীয়তলার চিলেকোঠায় খুন হয় জামিল শেখ ও তার শিশুকন্যা নুসরাত।

Post A Comment: