পার্বত্য বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর এমপি বলেছেন, যে দেশের নেত্রী শান্তিতে নোবেল জয়ী সেই দেশে রোহিঙ্গাদের উপর এমন নির্মম নির্যাতন কোনোভাবেই আমারা মেনে নিতে পারি না।
 

পার্বত্য বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর এমপি বলেছেন, যে দেশের নেত্রী শান্তিতে নোবেল জয়ী সেই দেশে রোহিঙ্গাদের উপর এমন নির্মম নির্যাতন কোনোভাবেই আমারা মেনে নিতে পারি না।


বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বান্দরবানের পুরাতন রাজবাড়ি মাঠে প্রবারণা পূর্ণিমা উপলক্ষে রথ যাত্রার উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

রথে মোমবাতি জ্বালিয়ে প্রার্থনা করে ও ফানুস উড়িয়ে প্রতিমন্ত্রী প্রবারণা পূর্ণিমার রথ যাত্রা অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন। মারমা তরুণ-তরুণীরা নেচে গেয়ে রথ টেনে নিয়ে যাবে এক স্থান থেকে অন্য স্থানে। এ সময় হাজারো ফানুস বাতিতে উজ্জ্বল হয়ে উঠবে রাতের আকাশ। প্রতিটি বৌদ্ধ মন্দির থেকে উড়ানো হবে ফানুস বাতি। দুদিন ধরে চলবে এই উৎসব।

রথ যাত্রার উদ্বোধন শেষে রোহিঙ্গাদের প্রসঙ্গে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘উৎসবের খরচ কমিয়ে এই অর্থ রোহিঙ্গাদের দেওয়া হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানবতার পরিচয় দিয়ে বিশ্বে প্রশংসিত হয়েছেন। প্রবারণা পূর্ণিমায় আমরা বৌদ্ধরা রোহিঙ্গাদের জন্য মঙ্গল কামনা করছি এবং সেই সাথে ধিক্কার জানাচ্ছি তাদের যারা মানবতার কল্যাণে এগিয়ে আসেনি।’

উৎসব নিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘ধর্ম যার যার উৎসব সবার। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির অনন্য জায়গা বান্দরবান। এখানে সব ধর্মের মানুষ সব সম্প্রদায়ের মানুষ মিলে মিশে এক সাথে উৎসব পালন করে। এটি সারাদেশে নজির সৃষ্টি করেছে।’

উৎসব অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিক, পুলিশ সুপার সজ্ঞিত কুমার রায়, পৌর মেয়র ইসলাম বেবী, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর সাংস্কৃতিক ইনস্টিটিউটের পরিচালক মংনু চিং মারমা, জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মংক্যচিং চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Post A Comment: