একদিন পরেই জেএসসি পরীক্ষা। কিন্তু লেখাপড়া বাদ দিয়ে মোবাইলে গেম খেলা নিয়ে ব্যস্ত দেখে মা দিয়েছে বকুনি। তাতেই অভিমান করে নিজেকেই শেষ করে দিল সোহান(১৪)।

একদিন পরেই জেএসসি পরীক্ষা। কিন্তু লেখাপড়া বাদ দিয়ে মোবাইলে গেম খেলা নিয়ে ব্যস্ত দেখে মা দিয়েছে বকুনি। তাতেই অভিমান করে নিজেকেই শেষ করে দিল সোহান(১৪)।


রাজশাহীর বাঘা উপজেলার খানপুর গ্রামে নিজ বাড়িতে সোমবার সকালে সে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে।

সোহানের বাবা আশরাফ আলী ঢাকায় রিকশা চালান।

সোহানের মা রাশিদা বেগম সাংবাদিকদের জানান, সোহান অষ্টম শ্রেণিতে পড়ালেখা করে। বুধবার থেকে তার জেএসসি পরীক্ষা শুরু। অথচ পরীক্ষা সামনে রেখে সোমবার সকালে সে মোবাইলে গেম খেলছিল। এটা দেখে তাকে বকাবকি করা হয়।

এরপর তিনি পাশের বাড়িতে একটি দরকারে যান। অনেকক্ষণ বাদে ফিরে এসে দেখেন সোহান ঘরের তিরের সঙ্গে গলায় রশি দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

তাৎক্ষণিকভাবে লোকজন তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

বাঘা থানা ওসি রেজাউল করিম বলেন, ঘটনা শুনেছি। স্বাস্থ্য কেন্দ্রে অফিসার গেছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

Post A Comment: