পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া উপজেলার বন্দর বাজারের একটি হার্ডওয়্যারের দোকানে চুরির ঘটনা ঘটেছে। এসময় দোকানের শাটার লক ভেঙে ভেতরে ঢুবে নগদ অর্থ লুটকরে চোরের দল। এ ঘটনায় স্থানীয় ব্যবসায়ীরা ক্ষোভ প্রকাশ করেছন।
Bhanderia-port-hardware-store-stolen-businessmen-anger 

পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া উপজেলার বন্দর বাজারের একটি হার্ডওয়্যারের দোকানে চুরির ঘটনা ঘটেছে। এসময় দোকানের শাটার লক ভেঙে ভেতরে ঢুবে নগদ অর্থ লুটকরে চোরের দল। এ ঘটনায় স্থানীয় ব্যবসায়ীরা ক্ষোভ প্রকাশ করেছন।


জানা গেছে, মেসার্স মায়ের দোয়া হার্ডওয়্যার স্টোরটি মজিবর, বেল্লাল ও মানিক তিন ভাই  মিলে পরিচালনা করে আসছিলেন। তবে, মূল পরিচালক মো. মজিবর রহমান।

প্রতিদিনের মতো বুধবার রাতে মো. মজিবর রহমার দোকান বন্ধ করে তাদের নিজ বাড়ি উপজেলার উত্তর-পূর্ব ভাণ্ডারিয়ায় যান।

আজ বৃহস্পতিবার সকালে দোকান খুলতে গিয়ে শাটারের দুটি লক ভাঙা দেখেন। পরে ভেতরে ঢুকে লোহার সিন্ধুকটিও ভাঙা অবস্থায় দেখতে পেয়ে থানা পুলিশে খবর দেন। দোকানে থাকা প্রায় সাড়ে তিন লাখ টাকা নিয়ে গেছে চোরের দল। অন্য মালপত্র খোয়া গেছে কিনা তা হিসাব করে বের করতে হবে বলে জানান ব্যবসায়ী মজিবর।

এ ঘটনায় ব্যবসায়ী মজিবর রহমান ভাণ্ডারিয়া থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

ব্যবসায়ী মজিবরের ছোট ভাই মো. মানিক চুরির ঘটনাকে অস্বাভাবিক বলে জানান। এমন গুরুত্বপূর্ণ একটি বন্দরে রাতের আঁধারে শাটার লক ভেঙে এমন চুরি হলো, কেউ দেখলো না। অথচ, এখানে পাহারাদার নিয়োজিত রয়েছে। কারো ইন্ধন, সহযোগিতা ছাড়া এ ঘটনা ঘটেনি বলে দাবি করেন মানিক।

ভাণ্ডারিয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. কামরুজ্জামান তালুকদার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এছাড়াও, উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ফাইজুর রশিদ খসরু, সাধারণ সম্পাদক মিরাজুল ইসলাম, ভাণ্ডারিয়া বন্দর ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি হাজী আ. ছালাম, সাধারণ সম্পাদক মো. মোশাররফ সিকদারসহ স্থানীয় ব্যবসায়ীরা দোকান পরিদর্শন করেন। তারা এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ সুষ্ঠু তদন্ত দাবি করেছেন।

ভাণ্ডারিয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুজ্জামান তালুকদার এ প্রতিবেদককে বলেন, এ ঘটনায় অভিযোগ পেয়েছি। মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Post A Comment: