লিবিয়ায় প্রবাসীদের জিম্মি করে মুক্তিপণ আদায়ের অভিযোগে নারীসহ দুইজনকে আটক করেছে চাঁদপুর গোয়েন্দা পুলিশ। রোববার রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার চিনাইর এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।
 

লিবিয়ায় প্রবাসীদের জিম্মি করে মুক্তিপণ আদায়ের অভিযোগে নারীসহ দুইজনকে আটক করেছে চাঁদপুর গোয়েন্দা পুলিশ। রোববার রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার চিনাইর এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।


আটকেরা হলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার চিনাইর এলাকার আনোয়ার হোসেন ও অপহরণ চক্রের মূলহোতা লিবিয়া প্রবাসী আলমগীর হোসেনের স্ত্রী জোছনা বেগম।

পুলিশ সুপার কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, চলতি বছরের ১০ জুলাই চাঁদপুর শহরে বিটি রোডের বাসিন্দা রুবেল হোসেন এ সংক্রান্ত একটি লিখিত অভিযোগ করেন। অভিযোগে বলা হয়, তার (রুবেলের) ভাই মারুফ চার বছর আগে লিবিয়ায় যান। সেখানে আলমগীর ও তার লোকজন মারুফকে জিম্মি করে টাকা দাবি করছেন।

বিষয়টি নিয়ে সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টায় চাঁদপুর পুলিশ সুপার কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে সাংবাদিক সম্মেলন করেন চাঁদপুরের পুলিশ সুপার (এসপি) শামছুন্নাহার।

তিনি বলেন, চাঁদপুর শহরের বিটি রোডের বাসিন্দা মারুফকে দীর্ঘদিন ধরে লিবিয়ায় নির্যাতন করে সেই ছবি ইমোতে পরিবারের কাছে পাঠানো হতো। অপহরণকারী চক্র মারুফকে জিম্মি করে পরিবারের কাছে ৩০ লাখ টাকাও দাবি করে।

এসপি শামছুন্নাহার জানান, মারুফের পরিবার ধাপে ধাপে ৯ লাখ ৩০ হাজার টাকা একটা ব্যাংক একাউন্টের মাধ্যমে পাঠায়। সেই একাউন্টের সূত্র ধরে পুলিশ আনোয়ার হোসেন (৪০) ও জোছনা বেগম (৩৮) কে আটক করে।

Post A Comment: