বরগুনার বেতাগীতে স্বামীকে আটকে রেখে শ্রেণিকক্ষে শিক্ষিকাকে গণধর্ষণের ঘটনায় দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শুক্রবার রাতে উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।
Rape-of-teacher-in-class-Two-arrested 

বরগুনার বেতাগীতে স্বামীকে আটকে রেখে শ্রেণিকক্ষে শিক্ষিকাকে গণধর্ষণের ঘটনায় দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শুক্রবার রাতে উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।


গ্রেপ্তার দুইজন হলেন- বেতাগী উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নের কদমতলা গ্রামের আমজাদ আলী হাওলাদারের ছেলে আবদুর হাকিম হাওলাদার এবং একই গ্রামের আজাহার কাজীর ছেলে কুদ্দুস কাজী।

গ্রেপ্তার দুইজন বৃহস্পতিবারের ওই ঘটনায় অভিযুক্তদের বিভিন্নভাবে উৎসাহিত করার পাশাপাশি তাদের এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যেতে সহযোগিতা করেছে বলে প্রমাণ পাওয়ার কথা জানিয়েছে পুলিশ। সেজন্য তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

বেতাগী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুন-অর রশীদ জানান, শুক্রবার রাতে হোসনাবাদ ইউনিয়নের কদমতলা গ্রামে অভিযান চালিয়ে দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। ওই শিক্ষিকার করা মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার বেতাগী উপজেলার একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে স্কুল ছুটির পর এক সহকারী শিক্ষকা ও তার স্বামী ভারতের পূর্ব মোদেনীপুর জেলার নন্দীগ্রামের বাসিন্দা বিদ্যালয়ে বসে কথা বলছিলেন। তাদের কথোপকথন দেখে অভিযুক্তরা স্কুলে প্রবেশ করতে চাইলে ওই শিক্ষিকা ভয়ে স্কুলের প্রধান দরজা তালা বন্ধ করে দেন।

এ সময় অভিযুক্তরা তালা ভেঙে ভেতরে ঢুকে তার স্বামীকে মারধর করে। পরে স্কুলের একটি কক্ষে আটকে রেখে ওই শিক্ষিকাকে দলবেঁধে ধর্ষণ করে চলে যায়।

ওই ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে ওই শিক্ষিকা ছয়জনকে আসামি করে বেতাগী থানায় একটি মামলা করেছেন।

Post A Comment: