ব্রিটেনের প্রথম পুরুষ মা হিসাবে ইতিহাস গড়লেন স্কট পার্কার। ১৬ জুন গ্লচেস্টারশায়ার রয়্যাল হাসপাতালে জন্ম দিলেন এক কন্যাসন্তানের। সুস্থ আছে নবজাতক ট্রিনিটি।

    ব্রিটেনের প্রথম পুরুষ মা হিসাবে ইতিহাস গড়লেন স্কট পার্কার। ১৬ জুন গ্লচেস্টারশায়ার রয়্যাল হাসপাতালে জন্ম দিলেন এক কন্যাসন্তানের। সুস্থ আছে নবজাতক ট্রিনিটি।

স্কট পার্কার (২৩) একজন রূপান্তরিত পুরুষ। তার আগে নাম ছিল হেডেন ক্রস। খবর আনন্দবাজার’র। দুই বছর আগে পশ্চিম লন্ডনের চ্যারিং ক্রস হাসপাতালে লিঙ্গ পরিবর্তন করে পুরুষ হন স্কট পার্কার। পুরুষ হিসাবে আইনি স্বীকৃতিও পান।
 
কিন্তু পুরুষ হলেও স্কট পার্কার মা হতে চেয়েছেন। নারী থেকে পুরোপুরি পুরুষে রূপান্তরিত হয়ে গেলে এই ইচ্ছাটা তার অপূর্ণই থেকে যেত। তাই রূপান্তরের সময় তিনি ন্যাশনাল হেলথ্র সার্ভিস (এনএইচএস) এর কাছে নিজের ডিম্বানু সংরক্ষণ করে রাখার অনুরোধ জানান। কিন্তু তার সেই প্রস্তাবে রাজি হয়নি এনএইচএস।

তবে হার মানেননি স্কট পার্কার। ইচ্ছা পূরণ করতে তাই মাঝপথেই তার রূপান্তরের প্রক্রিয়া থামিয়ে রাখেন। স্তন এবং ডিম্বাশয়ের পরিবর্তন স্থগিত করে দেন। ফেসবুকের মাধ্যমে এক স্পার্ম ডোনারের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। তার পর নিজের গর্ভেই ধারণ করেন সন্তান।

গত বুধবার গ্লচেস্টারশায়ার রেজিস্ট্রার অফিসে মেয়ে ট্রিনিটির জন্ম নথিভুক্ত হয়। সেখানে স্কট পার্কারকে তার মা হিসাবেই দেখানো হয়েছে। শিশুর বাবার নামের জায়গাটা ফাঁকা রাখা হয়েছে।

Post A Comment: