লালমনিরহাটের আদিতমারীতে স্বামীর গোপনাঙ্গ কাটার অভিযোগে আরফিনা আক্তার (১৮) নামে এক নববধূকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার রাতে স্বামীর বাড়ি থেকেই তাকে গ্রেফতার করা হয়।
ক্ষোভে স্বামীর গোপনাঙ্গ কাটলেন নববধূ

    লালমনিরহাটের আদিতমারীতে স্বামীর গোপনাঙ্গ কাটার অভিযোগে আরফিনা আক্তার (১৮) নামে এক নববধূকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার রাতে স্বামীর বাড়ি থেকেই তাকে গ্রেফতার করা হয়।


আরফিনা আদিতমারী উপজেলার পলাশী ইউনিয়নের খামারটারী-মদনপুর গ্রামের জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে সুজন মিয়ার স্ত্রী।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, সুজন মিয়ার সঙ্গে গত ৯ জুলাই পারিবারিকভাবে হাতীবান্ধা উপজেলার ভেলাগুড়ি ইউনিয়নের কাছিমবাজার গ্রামের ভ্যানচালক আশরাফুল ইসলামের মেয়ে আরফিনা আক্তারের বিয়ে হয়।

ওই রাতেই নববধূকে নিয়ে সুজন বাড়িতে আসেন। গত মঙ্গলবার দুপুরে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে মনোমালিন্য দেখা দেয়। এক পর্যায়ে ক্ষোভে নববধূ আরফিনা দা দিয়ে সুজনের লিঙ্গে কোপ দেন।

পরে বাড়ির লোকজন রক্তাক্ত অবস্থায় সুজনকে প্রথমে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে ও পরে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

এ ঘটনায় শুক্রবার বিকেলে সুজনের বাবা জাহাঙ্গীর আলম বাদী হয়ে আদিতমারী থানায় মামলা দায়েরের পর পুলিশ রাতে আরফিনাকে গ্রেফতার করে।

আদিতমারী থানার ওসি হরেশ্বর রায় জানান, গ্রেফতার আরফিনাকে শনিবার আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হবে।

Post A Comment: