বিভিন্ন সূত্রে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া নির্দলীয় সহায়ক সরকারের রূপরেখা ঘোষণা করার খবর প্রকাশিত হলেও তা সঠিক নয় বলে জানিয়েছেন দলটির নীতিনির্ধারণী বিভিন্ন সূত্র। তবে সূত্র জানায়, দলের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা ‘ভিশন-২০৩০’ জাতির সামনে তুলে ধরতে ১০ মে বুধবার বিকাল সাড়ে ৪টায় রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে এক সংবাদ সম্মেলনে আসছেন দলটির চেয়ারপারসন। জানা গেছে, ভিশন-২০৩০ কর্মপরিকল্পনার খসড়া শেষ হয়েছে। ২-৩ দিনের মধ্যে দলের স্থায়ী কমিটির বৈঠক ডেকে কিছু সংযোজন-বিয়োজন করে তা চূড়ান্ত করা হবে।


বিভিন্ন সূত্রে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া নির্দলীয় সহায়ক সরকারের রূপরেখা ঘোষণা করার খবর প্রকাশিত হলেও তা সঠিক নয় বলে জানিয়েছেন দলটির নীতিনির্ধারণী বিভিন্ন সূত্র। তবে সূত্র জানায়, দলের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা ‘ভিশন-২০৩০’ জাতির সামনে তুলে ধরতে ১০ মে বুধবার বিকাল সাড়ে ৪টায় রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে এক সংবাদ সম্মেলনে আসছেন দলটির চেয়ারপারসন।

জানা গেছে, ভিশন-২০৩০ কর্মপরিকল্পনার খসড়া শেষ হয়েছে। ২-৩ দিনের মধ্যে দলের স্থায়ী কমিটির বৈঠক ডেকে কিছু সংযোজন-বিয়োজন করে তা চূড়ান্ত করা হবে।

গতকাল ৪ মে বৃহস্পতিবার বাংলাদেশে নিযুক্ত বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত, বিশিষ্ট ব্যক্তি, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতা, সাংবাদিকসহ সুধী সমাজকে সংবাদ সম্মেলনের আমন্ত্রণ জানাতে ছাপানো হয়েছে আমন্ত্রণপত্র। আজকালের মধ্যেই তা পৌঁছে দেয়া হবে বলে জানা গেছে।

সূত্র জানায়, দলটি নির্বাচিত হলে দেশকে একটি ‘সুখী, সমৃদ্ধ, আধুনিক ও আত্মমর্যাদাশীল রাষ্ট্রে’ পরিণত করার লক্ষ্য নিয়ে ‘ভিশন-২০৩০’ শিরোনামের এ কর্মপরিকল্পনা প্রণয়ন করেছে। এর অন্যতম প্রতিপাদ্য রাখা হয়েছে- ‘সমৃদ্ধ দেশ এবং আলোকিত সমাজ গড়া।’

দেশের অগ্রসর চিন্তাবিদ, সাংবাদিক, বুদ্ধিজীবী, পরিকল্পনাবিদ, গবেষক ও বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার বিশিষ্ট ব্যক্তির মতামত ও পরামর্শের ভিত্তিতে ইতিমধ্যেই ‘ভিশন-২০৩০’ এর খসড়া চূড়ান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

‘ভিশন-২০৩০’ পুস্তিকা আকারে সারা দেশে ছড়িয়ে দেয়ারও পরিকল্পনা আছে দলটির। এর আলোকেই রচিত হচ্ছে দলের নির্বাচনী ইশতেহার। 

Post A Comment: