কাজে গতি আনতে কর্মীদের উপস্থিতির জন্য মান্ধাতা আমলের হাজিরা খাতা ব্যবহার বন্ধ করে দেশের সব সরকারি অফিসে ডিজিটাল হাজিরা করার উদ্যোগ নেয় সরকার। এর অংশ হিসেবে ইতোমধ্যে অনেক অফিস আদালতে ইলেকট্রনিক ডিভাইসে হাজিরা নেয়া চালু হয়েছে। যাতে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি কখন অফিসে এলেন এবং কখন অফিস ত্যাগ করলেন, তা রেকর্ড হয়ে থাকে। এবার জাতীয় সংসদেও ছোঁয়া লেগেছে ডিজিটাল হাজিরার। সংসদ সদস্য হিসেবে ডিজিটাল পরিচয়পত্র ব্যবহার করে সংসদে হাজিরা দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
সংসদে প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল হাজিরা 


কাজে গতি আনতে কর্মীদের উপস্থিতির জন্য মান্ধাতা আমলের হাজিরা খাতা ব্যবহার বন্ধ করে দেশের সব সরকারি অফিসে ডিজিটাল হাজিরা করার উদ্যোগ নেয় সরকার। এর অংশ হিসেবে ইতোমধ্যে অনেক অফিস আদালতে ইলেকট্রনিক ডিভাইসে হাজিরা নেয়া চালু হয়েছে। যাতে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি কখন অফিসে এলেন এবং কখন অফিস ত্যাগ করলেন, তা রেকর্ড হয়ে থাকে। এবার জাতীয় সংসদেও ছোঁয়া লেগেছে ডিজিটাল হাজিরার। সংসদ সদস্য হিসেবে ডিজিটাল পরিচয়পত্র ব্যবহার করে সংসদে হাজিরা দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।


বুধবার বেলা ১১টায় সংসদ অধিবেশন শুরুর আগে প্রধানমন্ত্রী নীল ফিতায় সবুজ রঙের নতুন পরিচয়পত্র ঝুলিয়ে সংসদ কক্ষে প্রবেশ করেন। পরে প্রশ্নোত্তর পর্বে অংশ নেন প্রধানমন্ত্রী।

জাতীয় সংসদ অধিবেশনে কোরাম গণনার জন্য এবারের অধিবেশনেই ডিজিটাল পদ্ধতি চালুর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এই পদ্ধতি চালুর ফলে সংসদ সদস্যদের তাদের পরিচয়পত্র নির্দিষ্ট মেশিনে পাঞ্চ করে সংসদে প্রবেশ করবেন। ফলে স্পিকার, ডেপুটি স্পিকার ও প্রধান হুইপসহ সংশ্লিষ্টরা সহজেই জানতে পারবেন কতজন সদস্য উপস্থিত হয়েছেন।

সংসদ সদস্যদের হাজিরা গণনার ব্যবস্থা ডিজিটাল করার অংশ হিসেবে সংসদ সচিবালয় নতুন এই পরিচয়পত্র দিচ্ছে। আজ থেকেই এসব পরিচয়পত্র সংসদ সদস্যদের সরবরাহ করা শুরু হয়।

সংসদ সচিবালয়ের এক কর্মকর্তা বলেন, সংসদ সদস্যদের হাজিরা গণনার জন্য এবারই ডিজিটাল পদ্ধতি চালু করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীও আজ ডিজিটাল পদ্ধতিতে হাজিরা দিয়েছেন। সব সংসদ সদস্যদের কাছে এই পরিচয়পত্র সরবরাহ করার পর পূর্ণাঙ্গভাবে এই পদ্ধতি চালু করা হবে বলে জানান ওই কর্মকর্তা।

Post A Comment: