গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে সৌদি প্রবাসীর বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ডাকাতরা বাড়ির গৃহকর্ত্রী লাভলী বেগমকে (৩৫) ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে এবং অন্যান্য সদস্যদের পিটিয়ে আহত করে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কাকার ও মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।
গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে সৌদি প্রবাসীর বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ডাকাতরা বাড়ির গৃহকর্ত্রী লাভলী বেগমকে (৩৫) ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে এবং অন্যান্য সদস্যদের পিটিয়ে আহত করে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কাকার ও মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।
 

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে সৌদি প্রবাসীর বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ডাকাতরা বাড়ির গৃহকর্ত্রী লাভলী বেগমকে (৩৫) ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে এবং অন্যান্য সদস্যদের পিটিয়ে আহত করে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কাকার ও মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।


গুরুতর আহত লাভলী বেগমকে গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন লাভলী বেগমের ভাই রিফাতুল সমাজদার।

উপজেলার রামদিয়া গ্রামের সৌদি প্রবাসী জামাল মিনার বাড়িতে বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।

লাভলী বেগম সাংবাদিকদের জানান, রাত আনুমানিক সাড়ে ১২টার দিকে ১০-১২ জনের একটি সশস্ত্র ডাকাত দল কেচি গেট ভেঙে বাড়িতে ঢুকে পড়ে। এ সময় ডাকাতের উপস্থিতি টের পেয়ে অন্য কক্ষে ঘুমিয়ে থাকা ছেলে-মেয়েদের দেখতে যাওয়ার চেষ্টা করলে ডাকাতরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাকে উপর্যুপরি কুপিয়ে জখম করে। অন্য কক্ষে থাকা তার মেয়ে ও ছোট ভাই ইব্রাহিমকে লাঠি দিয়ে পেটায়। পরে ডাকাতরা আলমারিতে রাখা স্বর্ণালঙ্কার, নগদ টাকা ও মূল্যবান মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। তাদের প্রায় ১০ লাখ টাকার মালামাল লুট হয়েছে বলে ওই গৃহকর্ত্রী জানান।

কাশিয়ানী থানার রামদিয়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. শফিকুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে রাতেই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে আহতদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

Post A Comment: