বলা যায়, বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের প্রায় সব রেকর্ডই তার দখলে। এবার নিজের মুকুটে আরও একটি পালক যোগ করার অপেক্ষায় দেশসেরা এই ওপেনার। নিজেদের শততম টেস্টে কলম্বোর পি সারা ওভালে আর এক রান বেশি করলেই নাম লেখাতেন অনন্য সেই রেকর্ডে! কিন্তু ব্যক্তিগত ৮২ রানে সাজঘরে ফেরায় অপেক্ষা বাড়ে দেশসেরা এই ওপেনারের। টেস্ট শেষে এবার বাংলাদেশের মিশন ওয়ানডে সিরিজ। তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথমটিতে রানের খাতা খুলতে পারলেই প্রথম কোনো বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১০ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করবেন বাঁ-হাতি এই দেশসেরা ওপেনার।

বলা যায়, বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের প্রায় সব রেকর্ডই তার দখলে। এবার নিজের মুকুটে আরও একটি পালক যোগ করার অপেক্ষায় দেশসেরা এই ওপেনার। নিজেদের শততম টেস্টে কলম্বোর পি সারা ওভালে আর এক রান বেশি করলেই নাম লেখাতেন অনন্য সেই রেকর্ডে! কিন্তু ব্যক্তিগত ৮২ রানে সাজঘরে ফেরায় অপেক্ষা বাড়ে দেশসেরা এই ওপেনারের।


টেস্ট শেষে এবার বাংলাদেশের মিশন ওয়ানডে সিরিজ। তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথমটিতে রানের খাতা খুলতে পারলেই প্রথম কোনো বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১০ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করবেন বাঁ-হাতি এই দেশসেরা ওপেনার।

শততম টেস্টের আগে ৪৮ টেস্টে তামিমের ঝুলিতে ছিল ৩৫৪৬ রান। আর সব ফরম্যাট মিলিয়ে মোট রান ছিল ৯৮৬৮। কলম্বো টেস্টে ১০০০০ রান পূরণ হতে তার দরকার ছিল ১৩২ রানের। কিন্তু শততম টেস্টের দুই ইনিংস মিলিয়ে তামিম করেন ৪৯ ও ৮২ রান। আর তাতেই ৯৯৯৯ রানেই থামতে হয় তিন ফরম্যাটেই বাংলাদেশের সর্বোচ্চ এই রান সগ্রাহককে।
শনিবার ২৫ মার্চ ডাম্বুলায় শুরু হবে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচ। সিরিজের প্রথম ম্যাচে যদি শূন্য রানে আউট না হন তিনি, তাহলেই প্রথম বাংলাদেশি ব্যাটসম্যান হিসেবে টেস্ট, ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি মিলিয়ে প্রথম বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে ১০ হাজার রানের মাইলফলকে পৌঁছাবেন তামিম।

এখন পর্যন্ত ৪৯ টি টেস্ট ম্যাচে ৯৪ ইনিংসে ব্যাট করে ৩৯.৫৩ গড়ে বাঁ-হাতি এই ওপেনার রান করেছেন ৩৬৭৭। সর্বোচ্চ ২০৬ রান। টেস্ট ক্রিকেটে তার সেঞ্চুরির সংখ্যা ৮টি এবং হাফ সেঞ্চুরি করেছেন ২২টি।১৬২ ওয়ানডেতে তামিমের সংগ্রহ ৩২.৪০ গড়ে ৫১২০ রান। ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ১৫৪ রান। ওয়ানডে ক্রিকেটে তার সেঞ্চুরির সংখ্যা ৭টি এবং হাফ সেঞ্চুরি রয়েছে ৩৪টি। এছাড়া ৫৫টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ২৪.০৪ গড়ে এক সেঞ্চুরি ও চার হাফ সেঞ্চুরিতে করেছেন ১২০২ রান। ক্যারিয়ার সর্বোচ্চ অপরাজিত ১০৩ রান।

বাংলাদেশের হয়ে ব্যক্তিগত রান সংগ্রাহকের তালিকায় ক্রিকেটের তিন ফরম্যাটেই তামিমের পেছনে রয়েছেন সাকিব আল হাসান। তিন ফরম্যাট মিলিয়ে বিশ্ব সেরা এই অলরাউন্ডারের সংগ্রহ মোট ৯২৮৮ রান। ১০ হাজার রানের মাইলফলকে পৌঁছাতে বাঁ-হাতি এই অলরাউন্ডারের এখনও প্রয়োজন ৭১২ রান। 

রাঙ্গিরি ডাম্বুলা আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে আগামী শনিবার প্রথম ওয়ানডেতে মুখোমুখি হবে শ্রীলঙ্কা-বাংলাদেশ। একই ভেন্যুতে দ্বিতীয় ম্যাচ ২৮ মার্চ। কলম্বোয় এক এপ্রিল অনুষ্ঠিত হবে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডে। 

Post A Comment: