চীনে বিগত বছরগুলোর তুলনায় এবারের শীত মৌসুমে উদ্বেকজনকহারে বেড়েছে বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা। এ বিষয়ে এক প্রতিবেদনে বলা হয়, এবারের শীত মৌসুম থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১৬১ জনের বেশি। ১৩ মার্চ সোমবার দেশটির জাতীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কমিশনের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানানো হয়। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, চলতি বছরের জানুয়ারিতে বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে ৭৯ জন এবং ফেব্রুয়ারিতে ৬১ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এছাড়া ফেব্রুয়ারিতে বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়েছেন ১৬০ জন।


 চীনে বিগত বছরগুলোর তুলনায় এবারের শীত মৌসুমে উদ্বেকজনকহারে বেড়েছে বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা। এ বিষয়ে এক প্রতিবেদনে বলা হয়, এবারের শীত মৌসুম থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১৬১ জনের বেশি।

১৩ মার্চ সোমবার দেশটির জাতীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কমিশনের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানানো হয়।  প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, চলতি বছরের জানুয়ারিতে বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে ৭৯ জন এবং ফেব্রুয়ারিতে ৬১ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এছাড়া ফেব্রুয়ারিতে বার্ড ফ্লুতে আক্রান্ত হয়েছেন ১৬০ জন।

বিষয়টিকে উদ্বেকজনক উল্লেখ করে দেশটির সরকার বলছে, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে বার্ড ফ্লুতে এক মাসে এতজনের প্রাণহানি হয়নি। শীতে এই ভাইরাস বেশি ছড়িয়ে পড়ায় উদ্বেগ সৃষ্টি করছে। ২০১৩ সালের মার্চে চীনে প্রথম বার্ড ফ্লু মানুষের মধ্যে সংক্রমণ শনাক্ত হয়। ডিসেম্বরে সংক্রমণের হার দ্রুত বাড়তে থাকে।   

বার্ড ফ্লু একটি সংক্রামক ভাইরাসজনিত রোগ। সাধারণত পোলট্রি শিল্পের পশুপাখি যেমন মুরগি, হাঁস, কোয়েল ইত্যাদির নিবিড় সংস্পর্শে এলে এ রোগের সংক্রমণ হয়ে থাকে।

Post A Comment: