নতুন নির্বাচন কমিশন নিয়ে হতাশ ও ক্ষুব্ধ বিএনপি। গতকাল সোমবার রাতে দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সভাপতিত্বে বিএনপির স্থায়ী কমিটির বৈঠকে নতুন ইসি নিয়ে আলোচনা হয়। পরে দলের স্থায়ী কমিটির একাধিক সদস্য বলেন,আমরা আশা করেছিলাম একজন নিরপেক্ষ ব্যক্তিকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার করা হবে।

নতুন নির্বাচন কমিশন নিয়ে হতাশ ও ক্ষুব্ধ বিএনপি। গতকাল সোমবার রাতে দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সভাপতিত্বে বিএনপির স্থায়ী কমিটির বৈঠকে নতুন ইসি নিয়ে আলোচনা হয়। পরে দলের স্থায়ী কমিটির একাধিক সদস্য বলেন,আমরা আশা করেছিলাম একজন নিরপেক্ষ ব্যক্তিকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার করা হবে। 

  নির্বাচন কমিশন রায় নিয়ে আশাহত ও ক্ষুব্ধ বিএনপির স্থায়ী কমিটি

সেটাই সমগ্র জাতির প্রত্যাশা ছিল।কিন্তু যাকে সিইসি করা হয়েছে তিনি আওয়ামী লীগের জনতার মঞ্চের নেতা ছিলেন।

তার পরিবার আওয়ামী লীগের। আমরা হতাশ হয়েছি। আমরা ক্ষুব্ধ এবং আশাহত। তারা বলেন,সরকারের অনুগত লোকদের দিয়ে সার্চ কমিটি গঠন করার পর আমরা আশঙ্কা করেছিলাম দলীয় অনুগত লোকদের দিয়ে সিইসি করা হবে। সেই আশঙ্কা সত্য হলো। স্থায়ী কমিটির বৈঠকে এসব বিষয়ে আলোচনা হয়।

নেতারা জানান, আজ মঙ্গলবার রাতে ২০ দলের শীর্ষ নেতাদের সঙ্গে বেগম খালেদা জিয়ার বৈঠকের পর নতুন নির্বাচন কমিশন (ইসি) নিয়ে আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানাবে বিএনপি। আজ মঙ্গলবার রাতে গুলশানে বিএনপি। চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে জোট নেতাদের সঙ্গে এই বৈঠক হবে।

গতকাল রাত সাড়ে ৯টায় রাজধানীর গুলশা‌নে বিএন‌পি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে এ বৈঠক শুরু হয়। শেষ হয় সোয়া ১১ টায়।

বৈঠকে মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর,ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, লে. জেনারেল. (অব.) মাহবুবুর রহমান, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, নজরুল ইসলাম খান, ড. আব্দুল মঈন খান  উপস্থিত ছিলেন।

Post A Comment: