মানুষের মাথা এখন হুটহাট করে বেশি গরম হয়ে যাচ্ছে। অকারণে মেজাজ হারিয়ে সহিংস হয়ে উঠছে। এর কারণ হতে পারে বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধির বিষয়টি। নেদারল্যান্ডসের গবেষকেরা বলছেন, দীর্ঘ সময় ধরে তাপমাত্রা বেড়ে চলার প্রক্রিয়ায় মানুষ এখন বেশি সহিংস হয়ে উঠছে। উচ্চ তাপমাত্রা আর ঋতুগত বৈচিত্র্যের অভাব মানুষের মধ্যকার এই সহিংসতাকে আরও বাড়িয়ে তুলছে। এর ফলে মানুষ ভবিষ্যৎ সম্পর্কে কম ভাবছে এবং সহজে নিজের ওপর নিয়ন্ত্রণ রাখতে পারছে না।


গবেষকেরা বলছেন, উচ্চ তাপমাত্রা ও ঋতুবৈচিত্র্যের অভাবে মানুষ দ্রুততর জীবন যাপন করার চেষ্টা করছে যাতে অধিক আগ্রাসন ও সহিংসতা বাড়ছে। বৈশ্বিক তাপমাত্রা বাড়লে এ অবস্থা আরও ভয়ানক হবে।

গবেষকেরা তাঁদের এই তত্ত্বের নাম দিয়েছে ‘ক্লাশ মডেল’। ক্লাশের সিএল অর্থ ক্লাইমেট, এ-এগ্রেসন, এস-সেলফ কন্ট্রোল ও এইচ-হিউম্যান।
রিজ ইউনিভার্সিটি আমস্টারডামের গবেষকেরা উচ্চ তাপমাত্রার সহিংসতা বাড়ার বিষয়টি নিয়ে গবেষণা চালান।

গবেষক পল ভ্যান ল্যাং বলেন, ‘মানুষ কীভাবে বাস করবে, তা নির্ধারণ করে জলবায়ু। এটা মানুষের সংস্কৃতির ওপর প্রভাব ফেলে। নতুন এই তত্ত্বটি বিশ্বের বিভিন্ন অঞ্চলে জলবায়ুর পরিবর্তন সহিংসতা বৃদ্ধির ওপর কীভাবে প্রভাব ফেলে, তা বুঝতে সাহায্য করবে।’

Post A Comment: