কলকাতার ইডেন গার্ডেনসে রোববার ইংল্যান্ডকে চার উইকেটে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। আর এরই সাথে পর্দা নামে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ষষ্ঠ আসরের। বিশ্বকাপ থেকে বাংলাদেশ খালি হাতে ফিরলেও তামিম-মুস্তাফিজরা ব্যাক্তিগত পারফরমেন্সে ছিলেন বেশ উজ্জল। তবুও আইসিসির চোখে বিশ্বকাপের সেরা একাদশে সুযোগ পেয়েছেন শুধু পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। অথচ টুর্নামেন্টের টপ স্কোরার হওয়া সত্ত্বেও জায়গা হয়নি তামিম ইকবালের। বিশ্বকাপের পর্দা নামার পরদিনই আইসিসি বিশ্বকাপের সেরা একাদশের তালিকা ঘোষনা করে। এই তালিকায় দ্বাদশ খেলোয়াড় হিসেবে জায়গা করে নিয়েছেন কাটার বিশেষজ্ঞ খ্যাত মুস্তাফিজুর রহমান। এছাড়া বিশ্বকাপের এই সেরা একাদশের অধিনায়ক করা হয়েছে বিরাট কোহলিকে। দারুণ পারফরম্যান্স করে বিরাট কোহলি টানা দ্বিতীয়বারের মত বিশ্বকাপের সেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন। ১২ জনের এই তালিকা সোমবার দুপুরে প্রকাশ করেছে আইসিসি। কোহলিকে অধিনায়ক করে যে দল দেওয়া হয়েছে তাতে জায়গা পেয়েছেন ইংল্যান্ডের চার ক্রিকেটার। দুজন করে খেলোয়াড় আছে ভারত ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের। এছাড়া একজন করে খেলোয়াড় রয়েছে অস্ট্রেলিয়া, বাংলাদেশ, দক্ষিণ আফ্রিকার ও নিউজিল্যান্ডের। জানিয়ে রাখা ভাল, বিশ্বকাপের সেরা দলটিকে বেছে নিয়েছেন বিভিন্ন দেশের প্রাক্তন ক্রিকেটারর ও ধারাভাষ্যকাররা। কন্ডিশন ও পারফরম্যান্সের উপর ভিত্তি করে টুর্নামেন্টের সেরা দল নির্বাচন করেছেন নির্বাচকরা। বিশ্বকাপে আইসিসির চোখে সেরা একাদশ: জেসন রয় (ইংল্যান্ড), কুইন্টন ডি কক (দক্ষিণ আফ্রিকা, উইকেট রক্ষক), বিরাট কোহলি (ভারত, অধিনায়ক), জো রুট (ইংল্যান্ড), জস বাটলার (ইংল্যান্ড), শেন ওয়াটসন (অস্ট্রেলিয়া), আন্দ্রে রাসেল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), মিচেল স্যান্টনার (নিউজিল্যান্ড), ডেভিড উইলি (ইংল্যান্ড), স্যামুয়েল বাদ্রি (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), আশিষ নেহরা (ভারত), ‍মুস্তাফিজুর রহমান (বাংলাদেশ, দ্বাদশ)। এছাড়াও নারীদের বিশ্ব একাদশও ঘোষনা করে আইসিসি। নারী দলের অধিনায়ক হিসেবে মনোনীত হন ক্যারিবীয় অধিনায়ক স্টেফানি টেলর। বিশ্বকাপে আইসিসির চোখে সেরা একাদশ (নারী): সুজিয়া বেটস (নিউজিল্যান্ড), কার্লোট এডওয়ার্ডস (ইংল্যান্ড), মেগ ল্যান্নিং (স্টেফানি টেলর (ওয়েস্ট ইন্ডিজ, অধিনায়ক), সোফি ডিভাইন (নিউজিল্যান্ড) রাচেল প্রাইস্ট (নিউজিল্যান্ড, উইকেট রক্ষক), ড্যানড্রা ডট্টিন (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), মেগান শুট (অস্ট্রেলিয়া), সুন লাস (দক্ষিণ আফ্রিকা), লি ক্যাসপারেক (নিউজিল্যান্ড), আনা শ্রাবসোল (ইংল্যান্ড), আনাম আমিন (পাকিস্তান, দ্বাদশ)
 

কলকাতার ইডেন গার্ডেনসে রোববার ইংল্যান্ডকে চার উইকেটে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। আর এরই সাথে পর্দা নামে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ষষ্ঠ আসরের। বিশ্বকাপ থেকে বাংলাদেশ খালি হাতে ফিরলেও তামিম-মুস্তাফিজরা ব্যাক্তিগত পারফরমেন্সে ছিলেন বেশ উজ্জল।


তবুও আইসিসির চোখে বিশ্বকাপের সেরা একাদশে সুযোগ পেয়েছেন শুধু পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। অথচ টুর্নামেন্টের টপ স্কোরার হওয়া সত্ত্বেও জায়গা হয়নি তামিম ইকবালের। বিশ্বকাপের পর্দা নামার পরদিনই আইসিসি বিশ্বকাপের সেরা একাদশের তালিকা ঘোষনা করে।


এই তালিকায় দ্বাদশ খেলোয়াড় হিসেবে জায়গা করে নিয়েছেন কাটার বিশেষজ্ঞ খ্যাত মুস্তাফিজুর রহমান। এছাড়া বিশ্বকাপের এই সেরা একাদশের অধিনায়ক করা হয়েছে বিরাট কোহলিকে। দারুণ পারফরম্যান্স করে বিরাট কোহলি টানা দ্বিতীয়বারের মত বিশ্বকাপের সেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন।


১২ জনের এই তালিকা সোমবার দুপুরে প্রকাশ করেছে আইসিসি। কোহলিকে অধিনায়ক করে যে দল দেওয়া হয়েছে তাতে জায়গা পেয়েছেন ইংল্যান্ডের চার ক্রিকেটার। দুজন করে খেলোয়াড় আছে ভারত ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের। এছাড়া একজন করে খেলোয়াড় রয়েছে অস্ট্রেলিয়া, বাংলাদেশ, দক্ষিণ আফ্রিকার ও নিউজিল্যান্ডের।


জানিয়ে রাখা ভাল, বিশ্বকাপের সেরা দলটিকে বেছে নিয়েছেন বিভিন্ন দেশের প্রাক্তন ক্রিকেটারর ও ধারাভাষ্যকাররা। কন্ডিশন ও পারফরম্যান্সের উপর ভিত্তি করে টুর্নামেন্টের সেরা দল নির্বাচন করেছেন নির্বাচকরা।


বিশ্বকাপে আইসিসির চোখে সেরা একাদশ: জেসন রয় (ইংল্যান্ড), কুইন্টন ডি কক (দক্ষিণ আফ্রিকা, উইকেট রক্ষক), বিরাট কোহলি (ভারত, অধিনায়ক), জো রুট (ইংল্যান্ড), জস বাটলার (ইংল্যান্ড), শেন ওয়াটসন (অস্ট্রেলিয়া), আন্দ্রে রাসেল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), মিচেল স্যান্টনার (নিউজিল্যান্ড), ডেভিড উইলি (ইংল্যান্ড), স্যামুয়েল বাদ্রি (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), আশিষ নেহরা (ভারত), ‍মুস্তাফিজুর রহমান (বাংলাদেশ, দ্বাদশ)।


এছাড়াও নারীদের বিশ্ব একাদশও ঘোষনা করে আইসিসি। নারী দলের অধিনায়ক হিসেবে মনোনীত হন ক্যারিবীয় অধিনায়ক স্টেফানি টেলর।


বিশ্বকাপে আইসিসির চোখে সেরা একাদশ (নারী):
সুজিয়া বেটস (নিউজিল্যান্ড), কার্লোট এডওয়ার্ডস (ইংল্যান্ড), মেগ ল্যান্নিং (স্টেফানি টেলর (ওয়েস্ট ইন্ডিজ, অধিনায়ক), সোফি ডিভাইন (নিউজিল্যান্ড) রাচেল প্রাইস্ট (নিউজিল্যান্ড, উইকেট রক্ষক), ড্যানড্রা ডট্টিন (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), মেগান শুট (অস্ট্রেলিয়া), সুন লাস (দক্ষিণ আফ্রিকা), লি ক্যাসপারেক (নিউজিল্যান্ড), আনা শ্রাবসোল (ইংল্যান্ড), আনাম আমিন (পাকিস্তান, দ্বাদশ)

Post A Comment: