রিজার্ভের অর্থ চুরির ঘটনায় ফরাস উদ্দিনের নেতৃত্বে গঠিত সরকারি তদন্ত কমিটি বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক দুই ডেপুটি গভর্নর নাজনীন সুলতানা ও আবুল কাশেমকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কাযার্লয়ে তাদেরকে ডেকে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। বাংলাদেশ ব্যাংক সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। দুপুর একটায় সাবেক ডেপুটি গভর্নর নাজনীন সুলতানার জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে তদন্ত কমিটি। ডেপুটি গভর্নর থাকাকালীন সময়ে তিনি ব্যাংকের আইটি বিভাগের দায়িত্বে ছিলেন। তাকে টানা প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। এরপর বেলা সাড়ে তিনটার দিকে আবুল কাশেমকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু হয়।টানা এক ঘণ্টা তাকে জিজ্ঞাসাবাদ কার হয়। ডেপুটি গভর্নর থাকাকালীন সময়ে তিনি বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ সংশ্লিষ্ট বিভাগের দায়িত্বে ছিলেন। প্রসঙ্গত, গত ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে ফেডারেল রিজার্ভের বাংলাদেশ ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট থেকে ১০১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার শ্রীলঙ্কা ও ফিলিপাইনে স্থানান্তরিত করে দুর্বৃত্তরা। এর প্রায় একমাস পরে ফিলিপাইনের ইনকোয়ারার পত্রিকায় অর্থ পাচার সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশের রিজার্ভ চুরির বিষয়টি ফাঁস হয়। এ ঘটনার জের ধরে গভর্নর পদ থেকে সরে দাঁড়ান আতিউর রহমান। একইসাথে আবুল কাশেম ও নাজনীন সুলতানাকে ডেপুটি গভর্নরের পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। পরে রিজার্ভ চুরির বিষয়ে সার্বিক তদন্তের জন্য সাবেক গভর্নর ফরাস উদ্দিনের নেতৃত্বে তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করে সরকার। এ কমিটিকে ৩০ দিনের মধ্যে অন্তর্বর্তীকালীন রিপোর্ট ও ৭৫ দিনের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট প্রদান করতে বলা হয়েছে।


রিজার্ভের অর্থ চুরির ঘটনায় ফরাস উদ্দিনের নেতৃত্বে গঠিত সরকারি তদন্ত কমিটি বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক দুই ডেপুটি গভর্নর নাজনীন সুলতানা ও আবুল কাশেমকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কাযার্লয়ে তাদেরকে ডেকে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। বাংলাদেশ ব্যাংক সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। 


দুপুর একটায় সাবেক ডেপুটি গভর্নর নাজনীন সুলতানার জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে তদন্ত কমিটি। ডেপুটি গভর্নর থাকাকালীন সময়ে তিনি ব্যাংকের আইটি বিভাগের দায়িত্বে ছিলেন। তাকে টানা প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

এরপর বেলা সাড়ে তিনটার দিকে আবুল কাশেমকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু হয়।টানা এক ঘণ্টা তাকে জিজ্ঞাসাবাদ কার হয়। ডেপুটি গভর্নর থাকাকালীন সময়ে তিনি বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ সংশ্লিষ্ট বিভাগের দায়িত্বে ছিলেন।
প্রসঙ্গত, গত ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে ফেডারেল রিজার্ভের বাংলাদেশ ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট থেকে ১০১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার শ্রীলঙ্কা ও ফিলিপাইনে স্থানান্তরিত করে দুর্বৃত্তরা। এর প্রায় একমাস পরে ফিলিপাইনের ইনকোয়ারার পত্রিকায় অর্থ পাচার সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশের রিজার্ভ চুরির বিষয়টি ফাঁস হয়। এ ঘটনার জের ধরে গভর্নর পদ থেকে সরে দাঁড়ান আতিউর রহমান। একইসাথে আবুল কাশেম ও নাজনীন সুলতানাকে ডেপুটি গভর্নরের পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।
পরে রিজার্ভ চুরির বিষয়ে সার্বিক তদন্তের জন্য সাবেক গভর্নর ফরাস উদ্দিনের নেতৃত্বে তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করে সরকার। এ কমিটিকে ৩০ দিনের মধ্যে অন্তর্বর্তীকালীন রিপোর্ট ও ৭৫ দিনের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট প্রদান করতে বলা হয়েছে।

Post A Comment: