সামরিক শক্তিতে বাংলাদেশের অবস্থান কত তম আসুন জেনে নেই।

সামরিক শক্তিতে বাংলাদেশের অবস্থান কত তম আসুন জেনে নেই।
সামরিক শক্তিতে বাংলাদেশের অবস্থান কত তম আসুন জেনে নেই।


সামরিক শক্তি, বিশেষ করে আঞ্চলিক আধিপত্যের দিক থেকে বিশ্বে বাংলাদেশের অবস্থান ৫৩তম। তালিকায় প্রথম ও দ্বিতীয় স্থানে আছে যথাক্রমে যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়া। বিশ্লেষণধর্মী ওয়েবসাইট ‘গ্লোবাল ফায়ারপাওয়ার’ এ তালিকা প্রকাশ করেছে।

 ‘গ্লোবাল ফায়ারপাওয়ার’ জানায়, ১২৬ দেশের এই তালিকা তৈরির ক্ষেত্রে পরমাণু অস্ত্রের মজুদ থাকার বিষয়টি বিবেচনা করা হয়নি। এখানে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব পেয়েছে সংশ্লিষ্ট দেশগুলোর আঞ্চলিক আধিপত্য। এমনকি মোট অস্ত্রের সংখ্যাও প্রাধান্য পায়নি। তালিকায় দেখা গেছে, সামরিক শক্তিতে যুক্তরাষ্ট্রই সবচেয়ে শক্তিশালী। 

দ্বিতীয় স্থানে আছে রাশিয়া। তবে ট্যাংকের সংখ্যায় যুক্তরাষ্ট্রের (আট হাজার) চেয়ে রাশিয়া (১৫ হাজার) এগিয়ে আছে।  অন্যদিকে যুদ্ধবিমানের দিক থেকে রাশিয়া পিছিয়ে আছে। যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধবিমানের সংখ্যা ১৩ হাজার ৪৪৪টি। 

আর রাশিয়ার আছে তিন হাজার ৫৪৭টি। তালিকায় তৃতীয় স্থানে আছে চীন। এরপর আছে যথাক্রমে ভারত, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, দক্ষিণ কোরিয়া, জার্মানি, জাপান, তুরস্ক, ইসরায়েল। তবে তালিকায় পাকিস্তানের (১৭তম) আগে আছে ইন্দোনেশিয়া (১২তম) ও তাইওয়ান (১৫তম)। তালিকায় বাংলাদেশ ৫৩ নম্বরে আছে। দক্ষিণ এশিয়ার অন্যান্য দেশগুলোর মধ্যে শ্রীলঙ্কা ৭৩তম ও নেপাল ৮৪তম অবস্থানে রয়েছে। 

‘গ্লোবাল ফায়ারপাওয়ার’ আরো জানায়, প্রতিরক্ষা খাতে সবচেয়ে বেশি অর্থ বরাদ্দ দেয় যুক্তরাষ্ট্র। এই খাতে তাদের ব্যয় পাঁচ লাখ ৮১ হাজার কোটি ডলার। রাশিয়ার ব্যয় ৪৬ হাজার ৬০০ কোটি ডলার। চীনের ব্যয় রাশিয়ার চেয়ে বেশি। এশিয়ার এই দেশটির সামরিক বরাদ্দ এক লাখ ৫৫ হাজার ৬০০ কোটি ডলার। আর ভারতের বরাদ্দের পরিমাণ ৪০ হাজার কোটি ডলার।

Post A Comment: