রবোট দ্বারা নিয়ন্ত্রিত খামারে ফলবে ফসল!!!

রবোট দ্বারা নিয়ন্ত্রিত খামারে ফলবে ফসল!!!
রবোট দ্বারা নিয়ন্ত্রিত খামারে ফলবে ফসল!!!
মানুষ বীজ রোপনের পর, তা থেকে শস্য ফলানো ও ফলনের পর শস্য কেটে সঠিকভাবে সংগ্রহের সম্পূর্ণ দায়িত্ব পালন করবে খামারের ওই স্বয়ংক্রিয় প্রক্রিয়া। কাজগুলো সঠিকভাবে সম্পন্ন করতে স্বয়ংক্রিয় প্রক্রিয়াগুলো নিয়মিতভাবে বাতাসে কার্বন ডিঅক্সাইড-এর উপস্থিতি, পর্যাপ্ত আলোর ব্যবস্থা এবং উষ্ণতা সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলো নজরে রাখবে বলে জানিয়েছে প্রযুক্তিবিষয়ক খবরের সাইট ওয়্যারড।
ভিন্নধর্মী এই খামারটি গড়ে তুলছে জাপানি প্রতিষ্ঠান স্প্রেড। দেশটির কিয়োতো শহরে অবস্থিত এই প্রতিষ্ঠানের প্রধান কার্যালয় থেকে জানানো হয়েছে, নতুন এই প্রক্রিয়ার কারণে উৎপাদন ক্ষমতা ২৫ শতাংশ বাড়বে এবং ক্রেতাদেরকেও স্বল্পমূল্যে পণ্য সরবরাহ করা সম্ভব হবে। এ প্রসঙ্গে স্প্রেড-এর এক মুখপাত্র বলেছেন, “প্রক্রিয়াটি কর্মচারী খরচ প্রায় অর্ধেক কমিয়ে ফেলবে এবং শক্তি খরচ কমাবে এক-তৃতীয়াংশ।” প্রতিষ্ঠানটির তরফ থেকে আরও জানানো হয়েছে খামারটি মূলত বড় একটি কমপ্লেক্সের অংশ হিসেবে গড়ে তোলা হবে এবং এর গবেষণা, নির্মাণ ও বাস্তবায়নে মোট এক কোটি পাউন্ড খরচ হবে।
নতুন এই প্রক্রিয়াটি ‘ভার্টিকাল’ পদ্ধতিতে কাজ করবে বলেই জানিয়েছে পরিকল্পনাকারী প্রতিষ্ঠান স্প্রেড। এতে করে প্রক্রিয়াটি ‘ভার্টিকাল’ স্তরে খাদ্য উৎপাদন করতে পারবে, আর ‘ভার্টিকাল’ পদ্ধতিতে খাদ্য উৎপাদন করা হলে আবহাওয়া ও পরিবেশ তেমন একটা বিরূপ প্রভাব ফেলতে পারে না এবং ফসল আক্রান্ত হলেও তা দ্রুত ধরা পড়ে বলেই জানিয়েছে ওয়্যারড।
নতুন এ প্রক্রিয়াটি ২০১৭ সাল নাগাদ কাজ শুরু করবে এবং প্রথম অবস্থায় প্রতিদিন ৩০,০০০ প্যাকেটজাত লেটুস পাতা উৎপাদন করতে পারবে বলেই আশা করছে স্প্রেড।

Post A Comment: