অস্ট্রেলিয়া হোয়াইটওয়াশ হলো নিজের ঘরের মাঠেতেই।


অস্ট্রেলিয়া হোয়াইটওয়াশ হলো নিজের ঘরের মাঠেতেই
অস্ট্রেলিয়া হোয়াইটওয়াশ হলো নিজের ঘরের মাঠেতেই



টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে যে ভারতই সেরা, সেটা আবারও প্রমাণ হলো। ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত সংস্করণের এই ফরম্যাটে আবারও ভারতের কাছে পরাজিত হলো অস্ট্রেলিয়া। একেবারের ঘরের মাঠেই মহেন্দ্র সিং ধোনির হাতে হোয়াইটওয়াশ হতে হলো ওয়ানডে বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের। তিন ম্যাচের সিরিজের সবগুলোতেই হারলো জেমস ফকনারের দল। সিডনিতে শেষ ম্যাচেও তারা পরাজয়ের লজ্জা থেকে বের হতে পারলো না। বরং, শেন ওয়াটসনের দুর্দান্ত সেঞ্চুরি সত্ত্বেও অস্ট্রেলিয়া হেরেছে ৭ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে।

টস জিতে প্রথমে ব্যাট করে শেন ওয়াটসনের ৭১ বলে ১২৪ রানের দুর্দান্ত ইনিংসের ওপর ভর করে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৯৭ রানের বিশাল একটি স্কোর। জবাবে ব্যাট করতে নেমে রোহিত শর্মা, বিরাট কোহলি এবং সুরেশ রায়নার তিনটি ইনিংসের ওপর ভর করে এই বিশাল স্কোরও টপকে যায় ভারত। 

জয়ের জন্য শেষ ওভারে ভারতের প্রয়োজন ছিল ১৭ রান। বোলার ডান হাতি মিডিয়াম, অ্যান্ড্রু টাই; কিন্তু এই ১৭ রানও ছিল যেন মামুলি। যুবরাজ সিং প্রথম দুই বলেই একবার ওভার বাউন্ডারি এবং আরেকবার বাউন্ডারি ছাড়া করেন বলকে। ২ বল থেকেই চলে আসলো ১০ রান। পরের ৪ বলে প্রয়োজন ৭ রান। তৃতীয় বলে ১, চতুর্থ বলে ২ এবং পঞ্চম বলে ২ রান নেয়ার ফলে নাটকটা বেশ জমে ওঠে। 

India-australia

শেষ বলে জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিল ২ রান। ব্যাটসম্যান সুরেশ রায়না। কোন ঝুঁকিই নিলেন না। শট রান ঠেকাতে অস্ট্রেলিয়ার ক্লোজ ফিল্ডিংকে বোকা বানিয়ে তিনি বল পাঠিয়ে দিলেন বাউন্ডারির বাইরে। ১৯৮ রানের জায়গায় ভারতের রান দাঁড়ালো ২০০।  

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে ভারত প্রমাণ করে দিল, ঘরের মাঠে তারা শুধু কাগুজে বাঘ নয়, বাস্তবের বাঘ হয়েই আবির্ভূত হচ্ছে প্রতিপক্ষের সামনে। যে দলটি অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে তাদেরকেই হোয়াইটওয়াশ করতে পারে, তারা যে নিজেদের মাঠে কতটা ভয়ঙ্কর হবে, তা তো আর বলার অপেক্ষা রাখে না

Post A Comment: