শখ ভারী অদ্ভূত জিনিস। কখন যে কার কিসের শখ হয়। এই যেমন ১৮ বছরের রোমানিয়ান তরুণী আনা উরুসি। ওর শখ বিপজ্জনক জায়গায় দাঁড়িয়ে সেলফি তুলবে। আর সেগুলি সোশ্যাল নেটওয়ার্কিংয়ে পোস্ট করে মিলবে হাজার হাজার 'লাইক', 'পোস্ট'।

সেই শখ রাখতেই আনা স্পেশাফি সেলফি তুলতে বেছে নেয় ট্রেনের ছাদকে। উদ্দেশ্য ফেসবুকে সেই স্পেশাল সেলফি পোস্ট করে বাহবা আদায় করা। যেমনভাবা তেমন কাজ। এক বন্ধুকে নিয়ে সে পূর্ব রোমানিয়ার লাসিতে এক ট্রেনের ছাদের ওপর বেশ কষ্ট করে ওঠে। তারপর ট্রেনের ছাদের ওপর উঠে খেলতে শুরু করে।

এরপর আনা ছাদের ওপর শুয়ে পড়ে পা'টাকে ওপরে তুলে সেলফি তুলতে শুরু করে। পা-এর একটা অংশ ২৭ হাজার ভোল্টের ইলেকট্রিকের তারে ছুঁতেই রীতিমত বিস্ফোরণ হয়। তরুণীর শরীরের বেশিরভাগ অংশ পুড়ে যায়, জ্ঞানও হারিয়ে ফেলে সে। হাসপাতালে নিয়ে গেলে আনাকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। তাঁর শরীরের অর্ধেকটাই সম্পূর্ণ পুড়ে গিয়েছিল। আর আনার সেই ১৭ বছরের বন্ধুরও অবস্থাও ভাল নয়।

আনা উরুসি

এক প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, "ট্রেনের ছাদের ওপর দুটো মেয়েকে খেলতে দেখে চমকে উঠি। তারপর খুব জোরে চেঁচিয়ে ওদের বলি দেখো হাত, পা-টা যেন তারে না ঠেকে যায়। পরের মুহূর্তেই দেখলাম একটা বিস্ফোরণ হল। একটা মেয়েতো ছিকে পড়ল, আরেকজন জ্বলে গেল।

Post A Comment: